সর্বশেষ: আওয়ামী লীগ সরকারের আমলে সংবাদপত্র সবচেয়ে বেশি স্বাধীন পেয়েছে ।-এমপি শাওন সাতক্ষীরার বৈকারী সীমান্ত থেকে ১ কেজি ৫৭০ গ্রাম ওজনের ১০ পিস স্বর্ণের বারসহ আটক -১ সাতক্ষীরার বৈকারী সীমান্ত থেকে ১ কেজি ৫৭০ গ্রাম ওজনের ১০ পিস স্বর্ণের বারসহ আটক -১ আশাশুনিতে যৌতুকের দাবীতে স্বামীর হাতে স্ত্রী জখম আশাশুনি আলিয়া মাদ্রাসায় মতবিনিময় সভা অনুষ্ঠিত আশাশুনিতে ইউএনও'র ধান্যহাটি কমিউনিটি ক্লিনিক পরিদর্শন আশাশুনিতে ইউএনও'র ধান্যহাটি কমিউনিটি ক্লিনিক পরিদর্শন আশাশুনিতে ইউএনও'র ধান্যহাটি কমিউনিটি ক্লিনিক পরিদর্শন লালমনিরহাটে পানিতে ডুবে স্কুলছাত্রের মৃত্যু লালমনিরহাটে পানিতে ডুবে স্কুলছাত্রের মৃত্যু

ওসি প্রদীপের ডান হাত কনস্টেবল রুবেল আটক

প্রকাশ: 14 September, 2020 6:56 : AM

অবসরপ্রাপ্ত মেজর সিনহা হত্যার মামলার প্রধান আসামি কক্সকাজার থানার সাবেক ওসি প্রদীপের ডান হাত কনস্টেবল রুবেল শর্মাকে আটক করেছে র‌্যাব। সোমবার (১৪ সেপ্টেম্বর) তাকে আটক করার কথা জানায় র‌্যাপিড অ্যাকশন ব্যাটালিয়ন-র‌্যাব কর্তৃপক্ষ।

এর আগে বৃহস্পতিবার (১০ সেপ্টেম্বর) দুপুরে বন্দুকযুদ্ধে আবদুল আমিন ও মফিদ আলম নিহতের ঘটনাকে পরিকল্পিত হত্যা উল্লেখ করে টেকনাফ থানার সাবেক ওসি প্রদীপ কুমার দাশসহ ৫৬ জনের বিরুদ্ধে পৃথক দুটি মামলা হয়। কক্সবাজার জ্যেষ্ঠ বিচারিক আদালত (টেকনাফ-৩) মো. হেলাল উদ্দিনের আদালতে এ মামলা দুটি করা হয়।

আদালত মামলা আমলে নিয়ে এ সংক্রান্ত টেকনাফ থানার মামলার নথিপত্র আগামী ৯ নভেম্বর আদালতে উপস্থাপনের জন্য টেকনাফ থানাকে নির্দেশ দিয়েছেন বলে নিশ্চিত করেছেন বাদীপক্ষের আইনজীবী আবু মুছা মুহাম্মদ।

এ নিয়ে অবসরপ্রাপ্ত সিনহা নিহতের ঘটনার পর ওসি প্রদীপের বিরুদ্ধে বন্দুকযুদ্ধের নামে হত্যার অভিযোগ ও সাংবাদিক নির্যাতনের দায়ে ১৩টি মামলা দায়ের করা হয়েছে।

এদিকে বৃহস্পতিবার (১০ সেপ্টেম্বর) দুপুরে অবসরপ্রাপ্ত মেজর সিনহা মোহাম্মদ রাশেদ খান হত্যা মামলায় কক্সবাজারের পুলিশ সুপার এবিএম মাসুদ হোসেনকে আসামি হিসেবে অন্তর্ভুক্ত করতে আদালতে আবেদন করেছেন মামলার বাদী সিনহা বোন শারমিন শাহরিয়ার ফেরদৌস। ওইদিন কক্সবাজার জ্যেষ্ঠ বিচারকি আদালত (সদর-৪) তামান্না ফারাহর আদালতে এ আবেদনটি করা হয়। আদালত আবেদনটি গ্রহণ করলেও এ সংক্রান্ত কোনো আদেশ দেননি।

গত ৩১ জুলাই রাতে টেকনাফের শামলাপুর চেকপোস্টে পুলিশের গুলিতে নিহত হন অবসরপ্রাপ্ত সিনহা মোহাম্মদ রাশেদ খান। এরপর ৫ আগস্ট এ ঘটনায় ৯ জনের বিরুদ্ধে কক্সবাজার আদালতে মামলা করেন সিনহার বোন শারমিন শাহরিয়ার ফেরদৌস। মামলাটি র‌্যাবকে তদন্তভার দেয়া হয়। ৬ আগস্ট আদালতে আত্মসমর্পণ করেন পুলিশের ৭ সদস্য। গত এক মাসে র‌্যাব এপিবিএন’র ৩ সদস্য, পুলিশের মামলার ৩ সাক্ষীকে আটক করে মোট ১৩ জনকে নানা মেয়াদে রিমান্ডে নিয়েছে। ১২ জন আসামি এ পর্যন্ত আদালতে ১৬৪ ধারায় স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি দিয়েছেন।